Loading...

নিয়মাবলি

অ্যাকাউন্ট

  • ১। প্রত্যেকে ব্যবহারকারীকে প্রিয়'তে নিজস্ব একটি অ্যাকাউন্ট থাকতে হবে। আপনার অ্যাকাউন্ট না থাকলে, এখানে ক্লিক করে নতুন একাউন্ট খুলুন।
  • ২। অ্যাকাউন্টে লগ-ইন করার পর বিভিন্ন তথ্য দিয়ে অ্যাকাউন্টটি সম্পূর্ণ করুন।

রিওয়ার্ড পয়েন্ট

  • ১। রিওয়ার্ড পয়েন্ট দিয়ে প্রিয়'র বিভিন্ন সেবা গ্রহন করা যাবে।
  • ২। কুইজ এবং অন্যান্য ক্ষেত্র থেকে আপনি রিওয়ার্ড পয়েন্ট পেতে পারেন, যা দিয়ে ‘প্রিয় নিলাম’ থেকে পণ্য কেনার জন্য নিলামে অংশ নেয়া যাবে। তবে আপনি চাইলে রিওয়ার্ড পয়েন্ট কিনতেও পারেন। একাউন্টে লগ-ইন অবস্থায় স্ক্রিনের উপরে ডানপাশের ড্রপডাউন মেন্যু থেকে Buy Reward Points অপশনে ক্লিক করে নিজস্ব অ্যাকাউন্টে রিওয়ার্ড পয়েন্ট যোগ করা যাবে।
  • ৩। রিওয়ার্ড পয়েন্টকে প্রয়োজনে পুনরায় টাকায় কনভার্ট করা যাবে। (সেবাটি কিছুদিনের মধ্যেই চালু হবে)

বিড নাউ

  • ১। ‘প্রিয় নিলামে’ সরাসরি নিলামের মাধ্যমে পণ্য কেনা যাবে।
  • ২। নিলামে অংশগ্রহণ করতে আপনার ‘প্রিয় নিলাম’ অ্যাকাউন্টে পয়েন্ট থাকতে হবে। এই পয়েন্ট দিয়ে নিলামে অংশ নেওয়া যাবে।
  • ৩। নিলামের প্রতিটি পণ্যের একটি বেজ প্রাইস (ন্যূনতম মূল্য) উল্লেখ থাকবে। এই বেজ পয়েন্ট থেকে নিলাম মূল্য শুরু হবে।
  • ৪। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে যিনি সর্বোচ্চ পয়েন্ট ব্যবহার করে পণ্য ক্রয়ের চেষ্টা করবেন, তিনিই পণ্যটি ক্রয় করতে সক্ষম হবেন। নিলাম শেষ হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির অ্যাকাউন্ট থেকে ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট লক করে রাখা হবে এবং বিডকৃত বাকী টাকা পরিশোধের জন্য তিনি ৪৮ ঘন্টা সময় পাবেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বাকী টাকা পরিশোধে ব্যর্থ হলে লককৃত ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট স্থায়ীভাবে কেটে রাখা হবে। নিলাম সময় শেষ হওয়ার পর পণ্যের পাশে স্বয়ংক্রিয়ভাবে বিজয়ীর নাম যুক্ত হয়ে যাবে।
  • ৫। কেউ যদি নিলামে আপনার চেয়ে বেশি পয়েন্ট দিয়ে বিড করে, তাহলে সঙ্গে সঙ্গেই আপনার পয়েন্ট স্বয়ংক্রিয়ভাবে আপনার অ্যাকাউন্টে ফিরত যাবে। আপনার পয়েন্ট আপনি পুনরায় ব্যবহার করতে পারবেন।
  • ৬। প্রতিটি পণ্য ক্রয়ের জন্য ভিন্ন ভিন্ন সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়ে থাকে। ক্রয়ের নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার পর বিজয়ীর সঙ্গে যোগাযোগ করে পণ্য পৌঁছে দেওয়া হবে।
  • ৭। পণ্য ক্রয়ের জন্য বিড করেও পণ্য ক্রয় করতে সক্ষম না হলে, আপনার পয়েন্ট কাটা বা নষ্ট হবে না। পয়েন্ট আপনার অ্যাকাউন্টেই থাকবে।
  • ৯। ‘অটো বিড’ অপশনের মাধ্যমে আপনি আপনার পছন্দের পণ্য ক্রয়ে স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে নিলামে অংশ নিতে পারবেন। অন্য কেউ আপনার থেকে বেশি টাকা ব্যবহার করে বিড করার পর পর-ই স্বয়ংক্রিয়ভাবে বিড করে এই অপশনটি আপনাকে আগ্রহী ক্রেতাদের তালিকার প্রথম বা শীর্ষ স্থানে নিয়ে যাবে। এক্ষেত্রে আপনার দরকারি পণ্যটি কিনতে পারার সম্ভাবনা বৃদ্ধি পাবে। এজন্য Auto Bid Point অপশনে লিখুন সর্বোচ্চ কত পয়েন্টের বিনিময়ে আপনি পণ্যটি কিনতে চান। Auto Bid Increment অপশনে লিখুন প্রতিবার স্বয়ংক্রিয়ভাবে অন্য আগ্রহীদের তুলনায় আপনাকে কত পয়েন্টে এগিয়ে রাখা হবে। এ দুটি অপশনে ঠিকভাবে তথ্য দিয়ে ‘সাবমিট’ বাটনে ক্লিক করলেই আপনার অটো বিড চালু হবে। আপনার নির্ধারিত অটো বিড পয়েন্ট সর্বোচ্চ হলে, শীর্ষ অবস্থানে থেকে পণ্যটি আপনি কিনতে পারবেন।
  • ১০। যে পণ্যটি আপনি কিনতে আগ্রহী শুধু সেই পণ্যটি কেনার চেষ্টা করুন। মজা করার জন্য একাধিক পণ্য ক্রয়ের চেষ্টা থেকে বিরত থাকুন।
  • ১১। অ্যাকাউন্টে পর্যাপ্ত পয়েন্ট না থাকলেও আপনি যেকোনো পণ্যে যেকোনো অঙ্কের পয়েন্টে বিড করতে পারবেন। কিন্তু এক্ষেত্রে আপনার অ্যাকাউন্টে নূন্যতম ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট থাকতে হবে। এভাবে প্রতিটি পণ্য বিডে ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট লক হয়ে যাবে। সংশ্লিষ্ট নিলামে বিজয়ী হওয়ার পরবর্তী ৪৮ ঘন্টার মধ্যে বকেয়া টাকা পরিশোধ করলে লককৃত ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট আনলক হয়ে যাবে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বকেয়া পরিশোধে ব্যর্থ হলে এরকম প্রতিটি পণ্য বিডের জন্য আপনার অ্যাকাউন্ট থেকে ১০০০ টাকা সমমূল্যের পয়েন্ট কেটে রাখা হবে।

রিটার্ন পলিসি

  • ১। পণ্য সঠিকভাবে ডেলিভারি হয়ে গেলে তা ফেরত দেয়া যাবে না।
  • ২। কোনও কারণে অর্ডার বাতিল করলে টাকা ফেরত দেয়া হবে না। তাকে সমপরিমান রিওয়ার্ড পয়েন্ট দেয়া হবে, যা দিয়ে ভবিষ্যতে নিলামে পণ্য কিনতে পারবেন।

শর্তাবলি

  • ১। ‘প্রিয় নিলাম’ থেকে পণ্য কেনার পূর্বে পণ্যের বিস্তারিত বিবরণ মনোযোগ সহকারে পড়ে নিন।
  • ২। নিলামের মাধ্যমে কেনা কোন পণ্য বাতিল বা ফেরত দেওয়া যাবে না।
  • ৩। কোনো পণ্য সংগ্রহ করতে সমস্যা হলে কিংবা বাজারে পাওয়া না গেলে কর্তৃপক্ষ সেই অর্ডার বাতিল করার অধিকার রাখে।
  • ৪। প্রিয় নিলামে কোনো ধরনের প্রতারণার আশ্রয় নেওয়া যাবে না। কোনো প্রতারণা করলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
  • ৫। BID NOW সম্পর্কিত যেকোনো বিষয়ে প্রিয়’র সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত বলে বিবেচিত হবে।